শিরোনাম
জামালপুর রেলওয়ে ওভারপাসে আরো ১৫০ কোটি টাকা বরাদ্দ দিলেন প্রধানমন্ত্রী, ব্যয় দাড়ালো ৪৫০ কোটি টাকা ঢাবির ‘খ’ ইউনিটে প্রথম রাজেন্দ্র কলেজের নাহনুল কবির নুয়েল দেশের গন্ডি পাড়ি দিয়ে আন্তর্জাতিক পরিসরে সম্মানিত তাহসীন বাহার মাদকাসক্তি রোধে পারিবারিক বন্ধন দৃঢ় করতে হবে: জেলা প্রশাসক কুসিক নির্বাচনের বিজয়ী প্রার্থীদের গেজেট প্রকাশ আগামীকাল প্রকাশ করা হচ্ছে ঢাবির ‘খ’ ইউনিট অর্থাৎ মানবিক বিভাগে ভর্তি ফল কুমিল্লায় পিকআপে মাদক পরিবহনের সময় ১০০ কেজি গাঁজাসহ আটক ১ টাকার অভাবে চিকিৎসা বন্ধ কলেজছাত্রী ফারিহার পাবনা আমিনপুরে ১কেজি গাঁজাসহ আটক-১ টিকটিক বানাতে পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খুলে নিলো যুবক
অপরাধ ধামাচাপা দিতে ৩৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের সাংবাদিক সম্মেলন

অপরাধ ধামাচাপা দিতে ৩৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের সাংবাদিক সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার :

গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ৩৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম দুলাল ও তার ছেলে সাব্বির আহাম্মেদ রাজ এর বিরুদ্ধে কিশোর গ্যাং লালন পালনের অভিযোগ এনে গত ১৪ই মে শনিবার একাধিক জাতীয় দৈনিকে পএিকায় সংবাদ প্রকাশ হয়।

উক্ত সংবাদ গুলোতে কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম দুলাল ও তার ছেলে সাব্বির আহাম্মেদ রাজের কিশোর গ্যাংয়ের সম্পৃক্ততা উঠে আসে।

সংবাদ প্রকাশের পর পরই তড়িঘড়ি করে পরদিন ১৫ই মে ৩৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম দুলাল নিজেদের সাফাই গেয়ে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে। টানা কয়েকবার সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বিজ্ঞপ্তি পরিবর্তন করেন তারা। বেলা ১১ টায় সংবাদ সম্মেলন শুরু হওয়ার কথা থাকলেও টানা ২ ঘন্টা সাংবাদিকদের বসিয়ে রেখে দুপুর একটার দিকে শুরু হয়। সংবাদ সম্মেলনের লিখিত বক্তব্য পড়ে শোনান কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম দুলাল ও গত ১৩ই মে কিশোর গ্যাং এর হাতে আহত হওয়া মনির হোসেন।

লিখিত বক্তব্য পাঠকালীন সময় কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম দুলাল বলেন,সাইফুল ইসলাম দুলাল লিখিত বক্তব্যে বলেন, গত ১৪ই মে শনিবার ২টি জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় গাজীপুরে অস্ত্র হাতে কিশোর গ্যাংয়ের তান্ডব-২৪ ঘন্টা পরও অধরা, শিরোনামে প্রকাশিত সংবাদে আমাকে ও আমার ছেলেকে জড়িয়ে যেসব তথ্য প্রকাশিত হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা বানোয়াট, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ প্রনোদিত ভাবে, একটি কুচক্রী মহল আমাকে সমাজে হেয় প্রতিপন্ন করিবার লক্ষ্যে মিথ্যা তথ্য প্রকাশ করে।

সাব্বির উক্ত ঘটনার সাথে কখনই সম্পৃক্ত ছিলো না। আমাদের বিরুদ্ধে আনিত সকল অভিযোগ ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত, একটি কুচক্রী মহল ষড়যন্ত্র করে জনপ্রিয়তা ঈর্ষান্বিত হয়ে আমার সুনাম নষ্ট করার জন্য বিভিন্ন গণমাধ্যমে মিথ্যা তথ্য দিয়ে সংবাদ প্রকাশ করে।

সামাজিকভাবে হেয় প্রতিপন্ন করার ঘৃণ্য ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে।
আমি এই মিথ্যা ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত সংবাদের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। সেই সাথে মিথ্যা তথ্য প্রদানকারীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করতে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার সুদৃষ্টি কামনা করছি। অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেই সংবাদ সম্মেলনের সমাপ্তি ঘটান কাউন্সিলর। বেশ কয়েকটি সংবাদকর্মী একাধিক প্রশ্ন করলেও তার কোনো সদুত্তর পাওয়া যায়নি কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম দুলাল ও তার ছেলে রাজের কাছ থেকে। সংবাদ সম্মেলন শেষ হওয়ার পরপরই সংবাদকর্মীদের অফিস কক্ষ বের করে পাশের নির্মাণাধীন আরেকটি ভবনেরে নিয়ে ১,০০০টাকা করে প্রায় লক্ষাধিক টাকা সংবাদকর্মীদের হাতে গুঁজে দেয় তাদের পক্ষে সংবাদ প্রকাশের জন্য।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম দুলালের বিশ্বস্ত লোকজন জানান, সংবাদ সম্মেলনে লক্ষাধিক টাকা খরচ করলেও আসারূপ তেমন রিপোর্ট পায়নি কাউন্সিলর মহোদয় ও তার পরিবারে সদস্যরা। এতে অনেকটাই ক্ষিপ্ত কাউন্সিলর ১৬ই মে তিনি তাদের কাছে বলেন সাংবাদিক টাকা খাইছে নিউজ করে নাই এগুলোরে আরেকবার আসলে কথা সুনাবো।

অনুসন্ধানে জানা যায় কাউন্সিলর পুত্র সাব্বির আহাম্মেদ রাজ ২০১৪ সালে র‍্যাব -৩ এর হাতে নিজ ৩৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কার্যালয় ও বাসভবন থেকে গ্রেফতার হয়। এর পর দুই হাজার ২২ সালে কিশোর গ্যাং এর হাতে খুন হয় শাকিল নামে এক কলেজ ছাত্রের সেঘটনায় ও উঠে আসে কাউন্সিলর পুত্রের সংশ্লিষ্টতা। এছাড়াও অভিযোগ রয়েছে, কাউন্সিলর ও তার পুত্রোরা এলাকায় গড়ে তুলেছেন চড়া সুদের রাজত্ব ।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY SmartHostBD.com